ঝিনাইদহে মেহগনি বাগান থেকে নারীর লাশ উদ্ধার

রানা আহম্মেদ অভি:- ঝিনাইদহ সদর উপজেলার গান্না ইউনিয়নের পুড়াবেতাই শান্তি পাড়ায় রেকসোনা (৩৮) নামে এক নারীর লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। বাড়ির পাশে একটি মেহগনি বাগানে বুধবার সকাল ১২টার দিকে তার লাশ দেখতে পেয়ে পুলিশে খবর দেয় স্থানীয় লোকজন।

জানাগেছে, নিহত রেকসোনা শান্তিপাড়ার নূর ইসলামের মেয়ে। সে গান্না ইউনিয়ন পরিষদের মাটি কাটা শ্রমিক হিসাবে কাজ করতো। এর আগে ৫-৬ বিয়ে হলেও বর্তমানে স্বামী পরিত্যাক্তা।তার একটি ছেলে ছিল যে ৭ বছর আগে মারা যায়।

স্থানীয় একটি সূত্র জানিয়েছে, তার বিভিন্ন সময়ে বিভিন্ন লোকের সাথে পরকীয়া সম্পর্ক তৈরি হয়।তাদের সাথে মোবাইলে ঘন্টার পর ঘন্টা কথা বলা সহ আপত্তিকর অবস্থাতেও এর আগে লোকজনের হাতে ধরা পড়েছে।

বেতাই চন্ডিপুর পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জ এসআই সিরাজুল আলম জানান, ১২ টার দিকে স্থানীয় লোকজন লাশ পড়ে থাকতে দেখে পুলিশে খবর দেয়। আমরা যেয়ে প্রাথমিকভাবে এটাকে হত্যা বলেই আলামত দেখতে পাচ্ছি। গলায় ওড়না পেচানো ও জ্বীব কামড়িয়ে কাটা রয়েছে।নাক-মুখ দিয়ে রক্ত বের হচ্ছে।শ্বাসরোধ করেই হত্যা করা হয়েছে বলে প্রাথমিক ধারণা। স্বামী পরিত্যাক্তা এই মহিলা বাবার বাড়িতে থাকতো। লাশ ময়না তদন্ত হলে বিস্তারিত জানাতে পারবে বলে জানান তিনি।

গান্না ইউনিয়ন পরিষদের ৬ নং ওয়ার্ডের মেম্বার আঃ রহমান বলেন,মঙ্গলবার সন্ধ্যা সাতটার দিকে বাড়ি থেকে বের হয়।তার পর সারারাত বাড়ি ফেরেনি। বাড়ির লোকজন এদিক ওদিক খোজাখুজি করেও সন্ধান পায়নি। বুধবার দুপুর ১২টার দিকে বাড়ির পাশেই কার্তিকের মেহগনি বাগানে গ্রামে ছেলে-পেলে ছাগলের জন্য পাতা ভাংতে গিয়ে লাশ দেখতে পেয়ে অন্য লোকদের ডাকাডাকি করে নিয়ে আসলে। তারা পুলিশে খবর দেয়।

পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের প্রস্তুতি নিচ্ছে। উল্ল্যেখ্য ২০০৯ সালেও পোড়াবেতাই গ্রামে এই রকমই একটি মার্ডার হয়। এইভাবে হত্যার শিকার হয় রঙ্গবালা নামের এক পঞ্চাশোর্ধ নারী।
      Probashi Barta Corporation (PBC24 - USA)